1. litonsaikat@gmail.com : neelsaikat :
  2. stsauto2@gmail.com : শেষ আলো : শেষ আলো
শিরোনাম :
 বেরোবি-র  উপাচার্য অধ্যাপক ড. নাজমুল আহসান কলিমুল্লাহর বিরুদ্ধে দুর্নীতির ৪৬ অভিযোগ সিলেটে যুক্তরাজ্য থেকে আসা ২৮ জন যাত্রীর শরীরে করোনা পজিটিভ বিশ্বকাপ সুপার লিগে শুরুতে জিতে ১০ পয়েন্ট পেলো বাংলাদেশ আলোচিত সাবেক এমপি আউয়াল ও তাঁর স্ত্রীর সম্পদ ক্রোকের নির্দেশ পূর্বপুরুষের দেশ কলকাতা এসে অভিনেত্রী বনিতা সান্ধু জানলেন, তিনি কোভিড আক্রান্ত নতুন ইতিহাসঃ জাতীয় প্রেসক্লাবের সভাপতি ফরিদা ইয়াসমিন, সম্পাদক ইলিয়াস খান ফাইজার ভ্যাকসিন গ্রহণের ১ সপ্তাহ পর নার্স করোনা পজিটিভ সরকার এইচএসসি পরীক্ষার ফল প্রকাশের জন্য শীঘ্রই অধ্যাদেশ জারি করবে বাংলাদেশ ১৪ দিনের প্রাতিষ্ঠানিক কোয়ারেন্টিন বাধ্যতামূলক করছে, যুক্তরাজ্য থেকে আসা যাত্রীদের প্যানডেমিক প্যাকেজে ট্রাম্পের সই

প্যানডেমিক প্যাকেজে ট্রাম্পের সই

  • Update Time : Monday, December 28, 2020
  • 159 Time View

২৮ডিসেম্বর, ২০২০(শেষআলো ডটকম):  আপত্তি জানিয়েও শেষ পর্যন্ত প্যানডেমিক প্যাকেজে সই করলেন ডনাল্ড ট্রাম্প। আগে বিলটিকে জঘন্য বলেছিলেন তিনি। প্রবল চাপের মুখে প্যানডেমিক রিলিফ বিলে সই করতে বাধ্য হলেন বিদায়ী মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডনাল্ড ট্রাম্প। এর আগে ওই বিলটিকে ‘জঘন্য’ বলে ব্যাখ্যা করেছিলেন তিনি। ট্রাম্প সই করার কংগ্রেসে বিপুল ভোট পাওয়া বিলটি আইনে পরিণত হলো। বিশেষজ্ঞদের বক্তব্য, ডেমোক্র্যাট এবং রিপাবলিকানদের চাপের মুখে বিলটিতে সই করতে বাধ্য হয়েছেন ডনাল্ড ট্রাম্প।

 

দুই দশমিক তিন ট্রিলিয়ন ডলারের প্যাকেজ ঘোষণার বিল কিছু দিন আগেই পাশ হয়েছিল মার্কিন কংগ্রেসে। নির্বাচনের আগে থেকেই ডেমোক্র্যাটরা এই বিলের দাবি করছিল। বস্তুত, এই প্যাকেজে সব শ্রেণির অ্যামেরিকান উপকৃত হবেন। স্বাস্থ্য, ব্যবসায় বিপুল পরিমাণে প্রণোদনা দেওয়া হবে। অর্থনীতি যাতে আবার ঘুরে দাঁড়াতে পারে, তার জন্যই এই আর্থিক প্যাকেজের ব্যবস্থা। একই সঙ্গে কোভিড ভ্যাকসিন সকলের কাছে পোঁছে দেয়ার জন্যও একটি বাজেট ধরা হয়েছে বিলে।

 

প্রথম থেকেই এই বিলের বিরোধিতা করছিলেন ট্রাম্প। তিনি বিলটিকে জঘন্য বলে ব্যাখ্যা করেছিলেন। যদিও নিজের মন্তব্যের প্রেক্ষিতে কোনো ব্যাখ্যা দেননি তিনি। বলেননি, কেন বিলটি তাঁর খারাপ মনে হচ্ছে। বিশেষজ্ঞদের একাংশের বক্তব্য, ডেমোক্র্যাটদের কংগ্রেসে পাশ হওয়া বিল এমনিই তিনি সই করতে রাজি হচ্ছিলেন না। বস্তুত, গত কয়েকদিনে একাধিক বিলে ভেটো দিয়েছেন ট্রাম্প। আর্থিক প্যাকেজের বিলটিতে ভেটো না দিলেও আপত্তি জানিয়ে রেখেছিলেন তিনি।

 

কিন্তু বিলটিকে সমর্থন করেছিলেন রিপাবলিকানদের একটি বড় অংশ। বিশেষজ্ঞদের দাবি, তাঁদের চাপেই শেষ পর্যন্ত বিলটিতে সই করেন ট্রাম্প। সই করার আগে একটি টুইটও করেন তিনি।

 

ডেমোক্র্যাটরা অবশ্য চেয়েছিলেন প্রত্যেক মার্কিনির অ্যাকাউন্টে দুই হাজার ডলার করে দিতে। কিন্তু বিলে ৬০০ ডলার করে দেওয়া হয়েছে। অর্থনীতিবিদদের অনেকেই মনে করেন, দুই হাজার ডলার করে দেওয়া গেলে অর্থনীতির ভালো হতো। অর্থনীতি আবার সচল হতে শুরু করতো। কিন্তু বর্তমান পরিস্থিতির সাপেক্ষে দুই হাজার ডলার দেওয়া সম্ভব নয় বলেই মনে করেন অর্থনীতিবিদদের অন্য অংশ। বস্তুত সেই কারণেই অত টাকা দেওয়ার কথা বলা হয়নি বিলে।

(রয়টার্স, এপি, এএফপি)

Please Share This Post in Your Social Media

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

More News Of This Category
© All rights reserved © 2020 sheshalo
Site Customized By NewsTech.Com